এমবিএ (MBA) কোর্স কি? এমবিএ কোর্সের বিস্তারিত তথ্য

0
272
এমবিএ (MBA) মানে কি , এমবিএ করতে কত বছর সময় লাগে, করতে খরচ, যোগ্যতা ও উপকারিতা
MBA কোর্সের বিস্তারিত তথ্য

এমবিএ (MBA) মানে কি? এমবিএ ভর্তি হতে কি যোগ্যতা লাগে? (MBA) এমবিএ কোর্সে করতে খরচ কত হয়? এমবিএ (MBA) কোর্স করার উপকারিতা ও কত ফি লাগে? এমবিএ (MBA) কোর্সে সাবজেক্ট বা বিষয় কি কি? আজকে এই নিয়ে আমরা বিস্তারিত আলোচনা করবো।

আসসালামু আলাইকুম। আমার প্রিয় পাঠক বন্ধুরা। আশা করি আপনারা সবাই ভাল আছেন। আপনারা সবাই চিন্তা করেন উচ্চ মাধ্যমিক পাস করার পর কি করবো। কিভাবে নিজের ক্যারিয়ার গড়াবো। কোন কোর্স করলে সহজে চাকুরী পাবো। এমবিএ (MBA) কোর্স কিভাবে করে?

এরকম নানা রকমের চিন্তায় কি সিধান্ত নেবেন বুঝতে পারছেন না। তাই তেমনি একটা বিষয় নিয়ে আজ আমি আপনাদের কাছে চলে এসেছি। আর সে বিষয়টি হচ্ছে এমবিএ (MBA) কোর্স। আজ আমি এই এমবিএ (MBA) কোর্সের বিস্তারিত তথ্য সম্পর্কে আপনাদের পূর্ণাঙ্গ ধারনা দেওয়ার চেষ্টা করবো।

বন্ধুরা এমবিএ (MBA) কোর্স করার স্বপ্ন তো সবাই করে কিন্তু কয়জন বা করে থাকে। কেউ চায় এমবিএ (MBA) করে নিজের একটা ব্যবসা করতে। আবার কেউ চায় এমবিএ (MBA) শেষ করে ভাল একটা চাকুরী করতে। তাই আজ আমি আপনাদের ধাপে ধাপে সুন্দর ভাবে এমবিএ (MBA) সম্পর্কে জানাবো যাতে করে আপনাদের বুঝতে অসুবিধা না হয়।

  • এমবিএ (MBA) মানে কি ?
  • এমবিএ (MBA) করতে কি যোগ্যতা লাগে ?
  • (MBA) এমবিএ করতে কত বছর সময় লাগে ?
  • এমবিএ (MBA) করতে কত টাকা খরচ লাগে ?

আজ এমবিএ (MBA) কোর্সের বিস্তারিত তথ্য এর সমস্ত কিছু আপনাদের জানিয়ে দেবো। তো বন্ধুরা প্রথমে আমরা জেনে নেব এমবিএ (MBA) মানে কি ?

এমবিএ (MBA) মানে কি

এমবিএ (M.B.A) মানে হচ্ছে Master of Business Administration। এটি এমন একটি কোর্স মানে Post Graduation level বা Masters level এর কোর্স। আর এই কোর্সটির গুরত্ব সারা পৃথিবীতে রয়েছে। এই এমবিএ (M.B.A) কোর্সে বিজনেস এবং ম্যানেজমেন্ট বিষয় গুলো শেখানো হয়।

আপনি যদি বড় ব্যবসা করতে চান বা কোন উচু পদে চাকুরী করতে চান তাহলে আপনার জন্য এই কোর্সটি খুবই গুরুত্ব পূর্ন। তার কারন এই কোর্সে ব্যবসার বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে যেমন, Business plan, Business Management, Marketing strategy etc বিষয়ে বিস্তারিত শেখানো হয়।

(M.B.A) এমবিএ কোর্সের যোগ্যতা

(MBA) এমবিএ করতে কি যোগ্যতা লাগবে এবং কিভাবে আপনি এমবিএ (MBA) কোর্স করতে পারবেন। এমবিএ (MBA) কোর্স করতে গেলে আপনাকে প্রথমে যে কোথাও থেকে Graduation করতে হবে। মানে আপনি Ba, BSc, B.com বা কোন Filed থেকে Graduation complete করতে হবে।

তাহলে আপনি এমবিএ (MBA) কোর্স করার জন্য আবেদন করতে পারবেন। Graduation শেষ করার পর আপনাকে এমবিএ (MBA) কলেজে ভর্তির জন্য Internee exam দিতে হবে। এই এমবিএ (MBA) পরিক্ষা বিভিন্ন ধরনের হয়ে থাকে যেমন, CAT, MAT, etc পরীক্ষা হয়ে থাকে। এই পরিক্ষা শেষ করার পর আপনি এমবিএ (MBA) কোর্সে ভর্তি হতে পারবেন।

(MBA) এমবিএ সাবজেক্ট বা বিষয় নির্বাচন

এমবিএ (MBA) কোর্সে ভর্তি হবার পর আপনাকে বিষয় নির্বাচন করতে হবে। এরপর আপনি এমবিএ (MBA) করার পর কি করতে চাইছেন, কোন দিকে যেতে চাইছেন তার উপর নির্ভর করে আপনাকে বিষয় বা সাবজেক্ট বেছে নিতে হবে। কেননা এমবিএ (MBA) তে বিভিন্ন রকম সাবজেক্ট বা বিষয় রয়েছে, তার মধ্যে থেকে আপনাকে আপনার পছন্দের সাবজেক্ট বা বিষয় টা বেছে নিতে হবে।

কোন বিষয় টা নিয়ে আপনি এমবিএ (MBA) করতে চাইছেন। আর এমবিএ (MBA) এর বিভিন্ন সাবজেক্ট বা বিষয় গুলো হচ্ছে যেমন, Marketing Strategy Management, Business plan, Finance Management, Business law, Communication skills এছাড়া আরো অনেক বিষয় রয়েছে। আর এমবিএ (MBA) এর বিষয় বা সাবজেক্ট গুলোর মধ্যে থেকে আপনাকে বেছে নিতে হবে আপনি কোন দিকে যেতে চাইছেন।

এমবিএ (MBA) করে আপনি যদি নিজেই ব্যবসা করতে চান। তাহলে Business এ কি ধরনের Planning করা হয়ে থাকে। আর সে সব বিষয়ে আপনি যদি জানতে চান তাহলে আপনাকে এমবিএ (MBA) তে Business planning বিষয়ে পড়াশুনা করতে হবে।

তারপর ব্যবসার যে Product গুলো রয়েছে সে গুলো কিভাবে সেল করতে হবে কিভাবে ক্রেতেকে আকৃষ্ট করতে হবে। তার জন্য আপনি এমবিএ (MBA) তে Marketing করতে পারেন। এছাড়া Human resources উপর এমবিএ (MBA) করতে পারবেন।

ক্রেতেকে কিভাবে Maintains করবেন, তাদের সাথে কিভাবে আলোচনা করবেন এ সমস্ত জিনিস গুলো শেখানো হয়ে থাকে এমবিএ (MBA) কোর্সে। তো আপনি কি করতে চান, কোন দিকে যেতে চান তার উপর নির্ভর করে আপনাকে এমবিএ (MBA) কোর্সে সাবজেক্ট বা বিষয় বেছে নিতে হবে।

এমবিএ (MBA) কোর্স করতে কত বছর লাগে

এই এমবিএ (MBA) কোর্স দুই বছরে চারটি সেমিস্টারে হয়ে থাকে। যার প্রতিটি সেমিস্টার ছয় মাসের করে হয়ে থাকে। এমবিএ (MBA) কোর্স দুই বছর সময় লাগে সম্পন্ন করতে।

এমবিএ (MBA) কোর্স করার উপকারিতা ও ফি

(MBA) এমবিএ কোর্স করা উপকারিতা অবেক। এমবিএ (MBA) কোর্স শেষ করার পরে চাকরি পাওয়ার সুযোগ অনেক বেশিই থাকে। ভাল দক্ষতা নিয়ে এই এমবিএ (MBA) কোর্সটি শেষ করতে পারলে সরকারি বা বেসরকারি বিভিন্ন উচু পদে আপনি চাকুরী এবং ভাল বেতনও পেয়ে যাবেন। আপনি এই এমবিএ (MBA) কোর্স শেষ করার পরে PhD করতে পারবেন।

এমবিএ (MBA) কোর্স ফি বিভিন্ন কলেজে বিভিন্ন রকমের হয়ে খরচ থাকে। আপনি ভেবে নিতে পারেন এমবিএ করতে খরচ আনুমানিক দশ লক্ষ টাকার মত। আবার কোন কোন কলেজে এমবিএ করতে দশ লক্ষের বেশিও খরচ হতে পারে। তবে এই এমবিএ (MBA) কোর্সে অন্যান্য কোর্সের তুলনায় অনেক বেশি খরচ হয়ে থাকে।

তো বন্ধুরা এই ছিল এমবিএ (MBA) কোর্সের বিস্তারিত তথ্য মূলক আলোচনা। আশা করি এমবিএ (MBA) কোর্সের বিস্তারিত তথ্য সম্পর্কে বুঝতে আপনাদের আর কোন সমস্যা নেই। তাই আমি আশা করি যার যোগ্যতা আছে। তারা এখনি এমবিএ (MBA) কোর্স করার জন্য আবেদন করবেন।

আপনি আরো পড়তে পারেন ফ্রান্সে কম খরচে পড়াশুনার বিস্তারিত তথ্য। সবার জন্য রইলো শুভ কামনা। ধন্যবাদ